নোটিশ:
জৈন্তাপুর প্রতিদিন একটি অনলাইন ভিত্তিক জনপ্রিয় দৈনিক পত্রিকা । আপনাদের আশে পাশে ঘটে যাওয়া সংবাদটি আমাদের জানান । আমরা সঠিক তথ্য যাচাই করে খবর পোস্ট করবো ।জৈন্তাপুর প্রতিদিন একটি অনলাইন ভিত্তিক জনপ্রিয় দৈনিক পত্রিকা । আপনাদের আশে পাশে ঘটে যাওয়া সংবাদটি আমাদের জানান । আমরা সঠিক তথ্য যাচাই করে খবর পোস্ট করবো ।জৈন্তাপুর প্রতিদিন একটি অনলাইন ভিত্তিক জনপ্রিয় দৈনিক পত্রিকা । আপনাদের আশে পাশে ঘটে যাওয়া সংবাদটি আমাদের জানান । আমরা সঠিক তথ্য যাচাই করে খবর পোস্ট করবো ।জৈন্তাপুর প্রতিদিন একটি অনলাইন ভিত্তিক জনপ্রিয় দৈনিক পত্রিকা । আপনাদের আশে পাশে ঘটে যাওয়া সংবাদটি আমাদের জানান । আমরা সঠিক তথ্য যাচাই করে খবর পোস্ট করবো ।
জৈন্তাপুরের গোয়াবাড়ীর মুজিব নগরের হাল-চাল

জৈন্তাপুরের গোয়াবাড়ীর মুজিব নগরের হাল-চাল

সিলেটের জৈন্তাপুর উপজেলায় গোয়াবাড়ীতে প্রধানমন্ত্রীর উপহারের ঘর পেয়েছে ২৫৪ টি পরিবার এবং আরও কয়েকটি ঘর নির্মাণ করা হয়েছে। ৩ধাপে প্রধানমন্ত্রীর উপহারের এসকল ঘর উপকারভোগীদের মধ্যে বিতরণ করা হয়।

সরেজমিনে গিয়ে দেখা যানা যায়, গোয়াবাড়ীতে ২৫৪ টি প্রধানমন্ত্রীর উপহারের ঘর বেশির ভাগ উপকারভোগীরা বসবাস করছে না। খোঁজ নিয়ে যানাযায় ঘর বুঝে পাওয়ার পর হতে উপকারভোগী এখনও ঘরে আসেনি। অনেকেই ঘরে আসলেও দুই-এক দিন থেকে চলে গেছে আর আসেননি। অনেকেই মাঝে মধ্যে এসব ঘরে আসা যাওয়া করেন। অনেকেই তবে কেউ এখন ঘরের চাবি পেলেও তালা খুলে দেখেন নাই। অভিযোগ উঠেছে বরাদ্ধকৃত ঘর গুলোর মধ্যে ২টি ঘর বিক্রয়য়ের চেষ্টা চালছে। কেউ নিজেদের আত্মীয় পরিচয় দিয়ে ঘর গুলো কৌশলে ভাড়া দিয়ে রেখেছেন।

খোঁজ নিয়ে এলাকাবাসী ও মুজিব নগরের উপকারভোগীদের সাথে আলাপকালে জানাযায়, ঘরের নম্বার অনুসারে ৭৮ হাসিনা বেগম, ৮১ জয়নাল, ১০৬ জুনেদ, ১০৭ কয়েছ, ১১৬ জহুরা বেগম, ১৫৫ বুলেট বুন্যাজী, ২৭৮ রুস্তুম আলী, ১৮৬ শরিফ আহমদ, ১৯৩ হাওয়ারুন নেছা, ২০১ হারিছ উদ্দিন, ২১৯ ময়মুন নেছা, ২২১ আমিরুন নেছা, ২২৪ শিরিন আক্তার, ২৩২ আব্দুর রহিম, ২৩৩ তৈয়বুন নেছা, ২৩৫ খালিক, ২৪৩ আব্দুল মালিক, ২৫২ মেহেরুন নেছা, ২৫৭ নিহার বেগম, ২৫৮ মো. আব্দুল্লাহ, ২৬৪ কৃষ্ণ রানী, ২৬৮ লতিব মিয়া, ২৬৯ রাবেয়া আক্তার, ২৭০ রোসনা বেগম, ২৭১ কুলসুমা বেগম, ২৮২ মাসুক আহমদ, ২৮৬ শামীম আহমদ, ২৮৮ আমিনা বেগম, ২৯৬ শরিফা বেগম, ৩০০ শাহিন আহমদ, ৩০৪ লোবনা বেগম, ৩০৫ রুবেল, ৩০৬ সালমা বেগম’রা ঘর পাওয়ার পর হতে ব্যবহার করছেন না। এছাড়া ঘরে বসবাস করেন না এবং তাদের নাম পরিচয় না পাওয়ার জন্য কর্মকর্তাদের লেখা নাম মুছে ফেলা ১৯৫, ২০৪, ২২৭, ২৩০, ২৩৯, ২৪০, ২৪৬, ২৮৩, ২৯২, ২৯৩, ৩০১, ৩০২, ৩০৪।

অপরদিকে বরাদ্ধকৃত ঘরে আসা যাওয়া করেন কিন্তু থাকেন না ১৩৬ তারজুনা খাতুন, ১৮৭ শাহনুর বেগম, ২০৩ লাভলী বেগম, ২০৫ মনোয়ারা বেগম, ২০৬ আনোয়ার ধনি, ২১৫ জুনাকি বেগম, ২৫৪ ঝর্ণা বেগম, ২৫৫ সিরাজুল হক, ২৫৬ আব্দুস সামাদ, ২৬৫ রাম কুমার শর্ম্মা, ২৬৬ মোছা. নাছিমা বেগম, ২৭৪ মাসুক আহমদ, ২৭৫ কামাল, ২৯০ রোকিয়া বেগম।

এছাড়া ৩২৪ আব্দুস শুকুর বাড়ী ঘর উপজেলার গৌরী শংকর গ্রামের মাক্কুটিলায় রয়েছে সে জন্য তিনি ঘরে উঠেননি। ২৮৫ জামিলা পারভীন বাড়ী ঘর রয়েছে তাই তিনিও আসেন না। ১৮২ সুমি বেগম এর পরিবর্তে তার ভাই বসবাস করেন, ২৬২ সুমি দাস (ঘর বরাদ্ধ পাওয়ার পরও বাসা ভাড়া নিয়ে উপজেলা সদরে বাসবাস করেন)। ২৮০ নজরুল ইসলাম ১ম স্ত্রীকে নিয়ে এসে ৫দিন এবং ২য় স্ত্রীকে নিয়ে এসে ৩দিন ঘরে থেকে চলে যান আর আসেননি। অভিযোগ উঠেছে ১৬০ ও ২৬০ নম্বার ঘর দুটি বিক্রয় করা হচ্ছে।

২২৫ নম্বর ঘরে পানি পড়ে এবং ২৪৮ নম্বর ঘরের ভিতরের একটি দেওয়ালে বড় ধরনের ফাটল দেখা দিয়েছে। এছাড়া বেশ কয়েকটি ঘরের দরজা গুলো খুলে পড়ার আশংঙ্কা রয়েছে। খাবার পানি সরবরাহের জন্য রিং টিউবওয়েল স্থাপন করা হলেও এই বর্ষায় পানি নেই ও অকেজো অবস্থায় রয়েছে। কয়েকটি স্থানে রিং টিউবওয়েল বসানোর জন্য গর্ত করে খোলা অবস্থায় রাখা হয়। খোলা থাকার কারনে যে কোন সময় মৃত্যুসহ দূর্ঘটনার আশংকা রয়েছে। দুদিন পূর্বে অল্পের জন্য তিন শিশু রক্ষা পায়।

রিং টিউবওয়েল এর বিষয় জানতে উপজেলা স্যানোটারী অফিনার রাশেল আহমদ বলেন, মুলত রিং গুলোর পাম্প কম ব্যবহার হওয়ার কারনে নষ্ট হচ্ছে। এছাড়া আমরা আশ পাশের লোকজন সহ মিস্তরীকে বলেছি রিংয়ের গর্ত আবদ্ধ করে রাখার জন্য কিন্তু কোন কাজ হচ্ছে না। দ্রুত ব্যবস্থা নেওয়া হবে।

সহকারি কমিশনার (ভূমি) রিপামনি দেবী বলেন, উপজেলা কমিটির বৈঠকে যারা থকছেন না সেই বিষয়টি আলোচনা করা হবে। উদ্বতন কর্তৃপক্ষের নিদেশে পরবর্তী ব্যবস্থা গ্রহন করা হবে। যারা ঘর ব্যবহার করছেন না সেগুলো তদন্ত পূর্বক তালিকা তৈরী করা হবে। রিং টিউবওয়েল অবমুক্ত রাখার বিষয়টি আমি শুনেছি। বন্যার সার্বিক পরিস্থিতির কারনে সরজমিনে যওয়া হয়নি। নষ্ট গুলো মেরামত এবং গর্তগুলো আবদ্ধ করতে স্যানেটারীকে নির্দেশ দেওয়া হবে।

প্লিজ সেয়ার করুন

Leave a Reply

Your email address will not be published.

© ২০২০ সর্বস্বত্ব সংরক্ষিত
Design & Developed BY Mission It Development ltd.
x
English version