ফেসবুকে লাইভে এসে ওড়না ধরে টান দেওয়ার অভিযোগ, ২ পুলিশ সদস্যকে প্রত্যাহার

8 mins read

ঢাকার বনানী থেকে ফেসবুক লাইভে এসে এক নারী অভিযোগ করেছেন, পুলিশের দুই সদস্য তাঁর ওড়না ধরে টান দিয়েছেন। এ ঘটনার পর পুলিশের গুলশান বিভাগের দুই কনস্টেবলকে দায়িত্ব থেকে সরিয়ে দেওয়া হয়েছে।
মঙ্গলবার সন্ধ্যায় ইফতারের পর বনানীর শেরাটন হোটেলের সামনে এ ঘটনা ঘটে। দুই কনস্টেবল পুলিশের গুলশান বিভাগের একজন অতিরিক্ত উপকমিশনারের দেহরক্ষী ও গাড়ি চালকের দায়িত্বে নিয়োজিত ছিলেন।
পুলিশের গুলশান বিভাগের উপকমিশনার মো. আসাদুজ্জামান রাতে একটি দৈনিককে বলেন, ফেসবুকে করা অভিযোগের ভিত্তিতে দুই কনস্টেবলকে দায়িত্ব থেকে প্রত্যাহার করে নেওয়া হয়েছে। ঘটনাটি তদন্তের জন্য একটি কমিটি করা হয়েছে।
ফেসবুকে ভাইরাল হওয়া ওই ভিডিওতে দেখা যায়, এক নারী একটি পুলিশের পিকআপের সামনে দাঁড়ানো এক ব্যক্তিকে গালাগাল করে বলছেন এই ব্যক্তি তার ওড়না ধরে টান দিয়েছেন। এ সময় সেখানে সাদা পোশাকে ছিলেন দুই পুলিশ সদস্য। এ সময় তাঁকে পুলিশ সদস্যদের উদ্দেশে গালাগাল করতে শোনা যায়।
পাশে থাকা এক যুবককে তাঁর স্বামী পরিচয় দিয়ে ওই নারী বলেন, এক পুলিশ সদস্য তাঁর স্বামীর শার্ট ছিড়ে ফেলেছেন। ওই যুবকও পুলিশ সদস্যদের চোখ তুলে ফেলার হুমকি দিচ্ছিলেন। অপর দিকে তাঁরা নিশ্চুপ ছিলেন।
ফেসবুকে লাইভ করার আগে ওই এলাকার একটি ভিডিও ফুটেজে দেখা যায়, ওই নারী হেঁটে যাচ্ছেন। পেছনে তাঁর স্বামী পরিচয়দানকারী ব্যক্তির হাত ধরে দুই পুলিশ সদস্যের টানাহেঁচড়া চলছে। তবে ওই নারীর সঙ্গে অপ্রীতিকর কিছু ঘটতে দেখা যায়নি।

Leave a Reply

Your email address will not be published.

Latest from Blog

x
English version